শর্ত সাপেক্ষে খুলছে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়

প্রথম সময় ডেস্ক: বিশেষ বিবেচনায় বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের জন্য ব্যক্তিগতভাবে ব্যবহারিক ক্লাস ও পরীক্ষার সুযোগ দিতে যাচ্ছে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি)। তবে যেসব শিক্ষার্থী ফাইনাল সেমিস্টারে রয়েছেন শুধু তারাই এই সুযোগ পাবেন। কঠোর স্বাস্থ্যবিধি মেনে এবং দু’জন শিক্ষার্থীর মাঝে অন্তত ছয় ফুট দুরত্ব বজায় রেখে এই ক্লাস করতে হবে।

অবশ্য আগে থেকেই অনলাইনে ক্লাস-পরীক্ষা চলছে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে। এখন ইউজিসির এই সিদ্ধান্তের আলোকে সরাসরি ল্যাব ক্লাস ও পরীক্ষার অনুমতি পাচ্ছেন শিক্ষার্থীরা। তবে শুধু ফাইনাল সেমিস্টারে থাকা শিক্ষার্থীরাই এই সুযোগ পাবেন।

মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) ইউজিসির সভা শেষে গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানান একজন সদস্য। ভার্চুয়াল এই সভায় ইউজিসির চেয়ারম্যান, সদস্য ও কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে ইউজিসির চেয়ারম্যান ড. কাজী শহীদুল্লাহ বলেন, ‘যে সকল শিক্ষার্থী তাদের ফাইনাল সেমিস্টারে রয়েছেন তাদের ব্যক্তিগতভাবে প্রাকটিক্যাল ক্লাস ও পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।’

‘বেশকিছু বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে’ বলেও জানান তিনি।

ইউজিসি চেয়ারম্যান আরো বলেন, ‘আমরা বিশ্ববিদ্যালয়গুলো পুনরায় খুলে দিচ্ছি না। শুধু এসব শিক্ষার্থীদের কথা মাথায় রেখে বিশেষ বিবেচনায় ক্লাস ও পরীক্ষার অনুমতি দিচ্ছি। এ বিষয়ে সব দায় বিশ্ববিদ্যালয়গুলো বহন করবে।’

তিনি বলেন, একটি ক্লাসে সর্বোচ্চ ১০ জন শিক্ষার্থী ল্যাব ক্লাস ও পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন। একদিনে শুধু একটি ক্লাস নেয়া যাবে বলেও জানান তিনি।

করোনার প্রাদুর্ভাবের কারণে গত ১৮ মার্চ থেকে দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয় সরকার। কয়েক দফায় সেই ছুটির মেয়াদ বাড়িয়ে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত করা হয়। তবে এই ছুটি আরো বাড়তে পারে বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন সরকারের দায়িত্বশীলরা। তবে ছুটি কতদিন বাড়ানো হবে, সে বিষয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় বৈঠকে বসে সিদ্ধান্ত নেবে। বৈঠকটি বৃহস্পতিবার (২৯ অক্টোবর) অনুষ্ঠিত হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *