চূড়ান্ত বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের বিকল্প পয়েন্ট পদ্ধতি

প্রথম সময় ডেস্ক: করোনাভাইরাস মহামারির কারণে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে এখনও ৫০ শতাংশের কম ম্যাচ খেলা হয়েছে। অথচ ফাইনাল হতে আর বেশি দেরি নেই। এমন জটিল পরিস্থিতির সমাধান খুঁজছিল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। দুটি বিকল্প পথ খোলা ছিল। প্রথমটি, স্থগিত হওয়া সিরিজগুলোর পয়েন্ট ভাগাভাগি করে দেয়া আর দ্বিতীয়টি, সংগৃহীত পয়েন্টের শতকরা হারে নির্ধারিত হবে চ্যাম্পিয়নশিপের পয়েন্ট টেবিল।

দ্বিতীয় বিকল্প ব্যবস্থার সুপারিশ করেছিল অনিল কুম্বলের নেতৃত্বাধীন আইসিসি ক্রিকেট কমিটি। তাদের প্রস্তাব বেশি গ্রহণযোগ্য মনে করেছে আইসিসি বোর্ড এবং তা অনুমোদনও দিয়েছে। তাদের আশা, ২০২১ সালের মার্চে ফাইনালের আগে অন্তত ৮৫ শতাংশ ম্যাচ হয়ে যাবে।

নতুন এই পয়েন্ট পদ্ধতি অনুমোদন পেতেই অস্ট্রেলিয়া ভারতের চেয়ে কম পয়েন্ট নিয়েও উঠে গেছে শীর্ষে। তিনটি সিরিজ খেলে অজিদের অর্জন ২৯৬ পয়েন্ট, তবে তাদের শতাংশের হার ৮২.২২। ভারত চারটি সিরিজে ৭৫ শতাংশ হারে ৩৬০ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে। চার সিরিজ খেলে ইংল্যান্ড ২৯২ পয়েন্ট নিয়ে ৬০.৮ শতাংশ হারে তিন নম্বরে। তিন সিরিজ শেষে ৫০ শতাংশ হারে ১৮০ পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে নিউ জিল্যান্ড।

সামনে অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ খেলবে ভারত। স্থগিত হওয়া শ্রীলঙ্কা সিরিজও খেলার কথা ইংল্যান্ডের। এছাড়া নিউ জিল্যান্ড ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও পাকিস্তানের বিপক্ষে খেলবে। এই গুরুত্বপূর্ণ সিরিজগুলো থেকেই নির্ধারিত হতে পারে কারা খেলবে জুনের ফাইনালে।

নির্ধারিত সময়ে যতগুলো সিরিজ খেলা হবে, তাতে যে দুটি দল শতাংশের হিসাবে সবচেয়ে বেশি এগিয়ে থাকবে তারাই খেলবে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনাল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *