অধিনায়ক মরগানকে বাদ দিয়ে সাকিবকে খেলানোর দাবি

অনলাইন ডেস্কঃ

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ১৪তম আসরের এলিমিনেটর ম্যাচে কলকাতা নাইট রাইডার্সের প্রতিপক্ষ রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু।

সোমবার শারজা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বিরাট কোহলির নেতৃত্বাধীন বেঙ্গালুরুর বিপক্ষে মাঠের লড়াইয়ে অংশ নেবে সাকিবদের কেকেআর।

বাঁচা-মরার লড়াইয়ে নামার আগে শনিবার কেকেআরের ফেসবুকে সাকিবের প্রস্তুতির একটি ভিডিও পোস্ট করা হয়। সেই ভিডিওতে প্লে অফের জন্য ইয়ন মরগানের নেতৃত্বাধীন কেকেআরের জন্য অনেকেই শুভ কামনা জানিয়েছেন।

এলিমিনেটর এই ম্যাচে বাংলাদেশ দলের সাবেক অধিনায়ক সাকিব আল হাসানকে খেলানোর দাবি জানিয়েছেন অনেকেই।

এক নেটিজেন বলেছেন- নেটে অনুশীলন করে কী লাভ? মরগানের চেয়েও ১০০ শতাংশ বেশি মূল্যবান সাকিব। ম্যাচে মরগানের ভূমিকা কী? সাকিবের প্রতিভার সঙ্গে অবিচার করছে কেকেআর।

আরেকজন বলেছেন- আইপিএলের এই উপেক্ষার জবাব সাকিব বিশ্বকাপে দেবেন। মরগান যদি আবারো সাকিবকে উপেক্ষা করে তাহলে তোমরা হাড়ে-হাড়ে টের পাবে।

একজন তো কেকেআরের ইংলিশ অধিনায়ক ইয়ন মরগানকে ‘জোকার’ বলে বয়কটের ডাক দিয়েছেন।

চলতি আইপিএলে কেকেআরের হয়ে প্রথম তিন ম্যাচে সুযোগ পাওয়ার পর বাদ পড়েন সাকিব। তার বাদ পড়ার মধ্য দিয়ে পরাজয়ের বৃত্তে আটকে থাকা কেকেআরের প্লে অফে ওঠার পথেই দুশ্চিন্তায় পড়ে যায়। গ্রুপপর্বে নিজেদের শেষ দুই ম্যাচে জয় না পেলে কেকেআরের বিদায় নিশ্চিত ছিল।

এমন কঠিন পরিস্থিতিতে উপায়ন্তর না দেখে সাকিবকে দলে ফেরান কোচ ব্র্যান্ডন ম্যাককালাম ও অধিনায়ক ইয়ন মরগান। শেষ দুই ম্যাচে সুযোগ পেয়ে প্রত্যাশার চেয়েও ভালো করেন সাকিব। দুই ম্যাচের প্রথমটিতে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিপক্ষে নিজের প্রথম তিন ওভারে ১০ রানে এক উইকেট শিকার করা সাবিক চতুর্থ ওভারে দেন ১০ রান।

বাঁচা-মরার লড়াইয়ের ম্যাচে মোস্তাফিজদের রাজস্থান রয়েলসের বিপক্ষে মাত্র এক ওভার বোলিং করার সুযোগ পেয়ে সাকিব ১ রানে শিকার করেন ওপেনার ইয়েসভি জসওয়ালের উইকেট। কেকেআরকে প্লে অফে উঠতে সাকিবেরও অবদান রয়েছে।

এবারের আইপিএলে প্রত্যাশিত পারফরম্যান্স করতে পারেননি কেকেআরের অধিনায়ক ইয়ন মরগান। পুরো আইপিএলে ১৪ ম্যাচে ১২.৪ গড়ে মাত্র ১২৪ রান করেছেন মরগান। তার পরিবর্তে অন্য কোনো ক্রিকেটার এমন বাজে ফর্মে থাকলে সব ম্যাচে সুযোগই পেতেন না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *